সাত মাস পর শনাক্ত ২৮০০ ছাড়াল, মৃত্যু আরও ৩০

0
34

খবর৭১ঃ
দেশে গত একদিনে করোনাভাইরাসে আরও ৩০ জনের মৃত্যু হয়েছে, যা আড়াই মাস পর সর্বোচ্চ। এর আগে গত ৭ জানুয়ারি প্রাণঘাতী এ ভাইরাসে ৩১ জনের মৃত্যু হয়। এরপর মৃত্যুর সংখ্যা এতো বাড়েনি। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ৮ হাজার ৭২০ জনে।

এদিকে মৃত্যুর পাশাপাশি গত একদিনে করোনা শনাক্তের সংখ্যাও বেড়েছে। স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানাচ্ছে, উল্লেখিত সময়ে ২ হাজার ৮০৯ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে, যা সাত মাস পর (২২২ দিন) সর্বোচ্চ। এর আগে গত বছরের ১২ আগস্ট ২ হাজার ৯৯৫ জন শনাক্তের তথ্য দিয়েছিল স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। এরপর আর শনাক্তের সংখ্যা ২৮০০ ছাড়ায়নি। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৭৫৪ জন।

সোমবার বিকালে গণমাধ্যমে পাঠানো স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সংবাদ বিজ্ঞপ্তি বিশ্লেষণে এসব তথ্য জানা যায়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় ২৫ হাজার ১১১টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এ পর্যন্ত ৪৪ লাখ ৩৪ হাজার ২৩০টি নমুনা পরীক্ষায় দেশে ৫ লাখ ৭৩ হাজার ৬৮৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ১১.১৯ শতাংশ। এ পর্যন্ত শনাক্তের হার ১২.৯৪ শতাংশ।

চলতি বছরের জানুয়ারির দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকে শনাক্তের সংখ্যা কমতে থাকে। ৯ জানুয়ারি দৈনিক শনাক্তের সংখ্যা সাতশোর ঘরে (৬৯২) নামে। সর্বশেষ ২৫ জানুয়ারি ৬০২ জন শনাক্তের তথ্য জানানো হয়। এরপর পাঁচ সপ্তাহ দৈনিক শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ছয়শোর নিচে ছিল। এমনকি ফেব্রুয়ারির মাঝামাঝি সময়ে তিনশোর নিচেও নেমেছিল। এরপর গত ৩ মার্চ থেকে শনাক্তের সংখ্যা টানা তিনদিন (৬১৪, ৬১৯, ৬৩৫) ছয়শোর বেশি হয়। এরপর ৯ মার্চ ৯১২ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ছিল ৫.১৪ শতাংশ, যা তার আগের ৫৬ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ। এরপর গত ১০ মার্চ শনাক্তের সংখ্যা আবারো হাজার ছাড়ায়, যা তার আগের দুই মাসের (৬১ দিন) মধ্যে সবচেয়ে বেশি ছিল। আর গত ১৬ মার্চ শনাক্তের সংখ্যা ১৭০০ ছাড়ায় (১৭১৯ জন)। আর ১৮ মার্চ শনাক্ত বেড়ে হয় ২১৮৭। এরপর থেকে দৈনিক শনাক্ত বাড়ছেই।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানায় গত এক দিনে যে ৩০ জনের মৃত্যু হয়েছে তাদের মধ্যে পুরুষ ২৫ জন ও নারী ৫ জন। এদের মধ্যে ২০ জন ষাটোর্ধ্ব, ৫১ থেকে ৬০ বছরের সাতজন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে একজন, ৩১ থেকে ৪০ একজন ও ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে একজন।

গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন সুস্থদের নিয়ে এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৫ লাখ ২৪ হাজার ১৫৯ জন।

বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের প্রথম সংক্রমণ ধরা পড়েছিল গত বছরের ৮ মার্চ; তা সোয়া ৫ লাখ পেরিয়ে যায় চলতি বছরের ১৪ জানুয়ারি। এর মধ্যে গতবছরের ২ জুলাই ৪ হাজার ১৯ জন কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হয়, যা এক দিনে সর্বোচ্চ শনাক্ত।

প্রথম রোগী শনাক্তের ১০ দিন পর গতবছরের ১৮ মার্চ দেশে প্রথম মৃত্যুর তথ্য নিশ্চিত করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। সেবছরের ২৯ ডিসেম্বর তা সাড়ে সাত হাজার ছাড়িয়ে যায়। এর মধ্যে গত বছরের ৩০ জুন এক দিনেই ৬৪ জনের মৃত্যুর খবর জানানো হয়, যা এক দিনের সর্বোচ্চ মৃত্যু।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here