দন্ত চিকিৎসার আড়ালে টাপেন্টাডল বিক্রির দায়ে ব্যবসায়ীর কারাদন্ড

0
81
দন্ত চিকিৎসার আড়ালে টাপেন্টাডল বিক্রির দায়ে ব্যবসায়ীর কারাদন্ড

মিজানুর রহমান মিলন সৈয়দপুর প্রতিনিধি :

সৈয়দপুরে দন্ত (দাঁত) চিকিৎসার আড়ালে মাদকদ্রব্য বেচাকেনা করার অপরাধে ফার্মেসী মালিক মো. উমর ফারুককে (৩০) জেল জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। আজ সোমবার দুপুরে শহরের গোলাহাট মাংস বাজার সংলগ্ন কালাম ডেন্টাল ফার্মেসীতে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে ওই দন্ড দেয়া হয়। নীলফামারী জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন অধিদপ্তর ওই অভিযান পরিচালনা করেন। দপ্তরটির পরিদর্শক খবির আহমেদ জানান, গোপন সংবাদে তাঁরা জানতে পারেন, গোলাহাট এলাকায় ডা. মো. আবুল কালাম আজাদের মালিকানাধীন কালাম ডেন্টাল ফার্মেসীতে দন্ত চিকিৎসার আড়ালে দীর্ঘদিন ধরে নেশাজাতীয় নিষিদ্ধ ট্যাবলেট টাপেন্টাডল বেচাকেনা করা হচ্ছে।

সোর্সের দেয়া এমন সংবাদে আজ সোমবার দুপুরে ভ্রাম্যমাণ আদালতে নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) মো. রমিজ আলমের নেতৃত্বে নীলফামারী জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন অধিদপ্তরের সদস্যরা অভিযান পরিচালনা করে। এসময় ওই দোকানের রেক থেকে ৩০ পিস টাপেন্টাডল ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়। আটক করা হয় বোতলাগাড়ি ইউনিয়নের পুর্ব বোতলাগাড়ি কাচারি এলাকার মো. কাশেম আলীর পুত্র মো.উমর ফারুককে (৩০)। এসময় সেখানে আদালত বসিয়ে মাদক হিসেবে ঘোষনা করা নিষিদ্ধ টাপেন্টাডল ট্যাবলেট বিক্রির দায়ে উমর ফারুককে তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড ও ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। আদালতের ওই রায় ঘোষণা করেন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মো.রমিজ আলম।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here