ভারতে ভোটের লড়াই শুরু

0
26

ভারতের নাগরিকরা পরবর্তী পাঁচ বছরের জন্য দেশটির সংসদ সদস্যদের নির্বাচন করতে শুরু করেছেন বলে জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলো।

আজ শুক্রবার (১৯ এপ্রিল) সকাল থেকে শুরু হওয়া এই নির্বাচনে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি একটানা তৃতীয়বার ক্ষমতায় ফিরে আসার জন্য ভোটে লড়ছেন। আর বিজেপির নেতৃত্বাধীন এনডিএ জোটের বিপরীতে লড়াই করছে ‘ইন্ডিয়া’ জোট। তবে, কংগ্রেসসহ দুই ডজনেরও বেশি বিরোধী দল এই জোটে রয়েছে।

আজ শুরু হওয়া লোকসভার ৫৪৩ আসনে মোট সাত দফায় ভোট নেয়া হবে। আর আনুষ্ঠানিকভাবে ফল প্রকাশ করা হবে আগামী ৪ জুন। তবে সব রাজ্যে সাত দফায় ভোট হচ্ছে না। মোট তিনটি রাজ্যে ৭ দফায় ভোট নেয়া হবে। রাজ্যগুলো হলো-পশ্চিমবঙ্গ, উত্তরপ্রদেশ ও বিহার।

গোটা দেশের ২৮টি রাজ্য ও ৮টি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের মধ্যে শুক্রবার (১৯ এপ্রিল) প্রথম দফায় ২১টি রাজ্যের (১৭টি রাজ্য ও ৪টি কেন্দ্রশাসিত) ১০২টি আসনে ভোট নেয়া হবে। একই সঙ্গে শুক্রবার অরুণাচল প্রদেশ রাজ্যের বিধানসভার ৬০টি এবং সিকিমের ৩২টি আসনে ভোট নেয়া হবে।

শুক্রবার লোকসভা নির্বাচনে পশ্চিমবঙ্গের তিনটি আসনে ভোট নেয়া হচ্ছে। এই আসনগুলো হলো-কোচবিহার, আলিপুরদুয়ার এবং জলপাইগুড়ি। কমিশন জানিয়েছে, কোচবিহার, জলপাইগুড়ি ও আলিপুরদুয়ারে সকাল ৭টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হবে। শেষ হবে সন্ধ্যা ৬টায়।

এদিকে, কোচবিহারে তৃণমূলের হয়ে লড়ছেন জগদীশ চন্দ্র বর্মা বসুনিয়া, বিজেপির নিশীথ প্রামাণিক, কংগ্রেসের পিয়া রায় চৌধুরী এবং বামফ্রন্টের শরিক ফরোয়ার্ড ব্লকের নীতীশ চন্দ্র রায়। আরও রয়েছে রয়েছে অন্য ছোটখাটো দল ও স্বতন্ত্র প্রার্থীরাও। তবে মূল লড়াই পদ্ম বনাম ঘাসফুল।

জলপাইগুড়ি আসনে তৃণমূলের হয়ে লড়ছেন নির্মল চন্দ্র রায়, বিজেপির জয়ন্ত কুমার রায়, বামফ্রন্টের সিপিএম প্রার্থী দেবরাজ বর্মণ। রয়েছে অন্যান্য দল ও স্বতন্ত্র প্রার্থীরা। অন্যদিকে, আলিপুরদুয়ার আসনে লড়ছেন তৃণমূলের প্রকাশ চিক বরাইক, বিজেপির মনোজ টিগ্গা, বামফ্রন্টের মিলি ওঁরাও।

২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনে এই তিনটি আসনেই জয় পেয়েছিলেন বিজেপির প্রার্থীরা। কোচবিহারে নিশীথ প্রামাণিক, জলপাইগুড়িতে জয়ন্ত রায় এবং আলিপুরদুয়ারে জন বারলা। এবারও প্রথম ধাপের এই তিনটি আসনেই জয়ের ব্যাপারে বিজেপি আশাবাদী। এবিপি আনন্দ ও সি-ভোটারের জনমত জরিপও তাই বলছে। জরিপের ইঙ্গিত, প্রথম পর্বের তিনটি আসনেই জিততে চলেছে বিজেপি। যদিও তৃণমূল বলেছে, এই রাজ্যের মানুষ এখনো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উন্নয়নের পক্ষে। এবার তারা এই তিন আসনে ধর্মান্ধ বিজেপিকে পরাজিত করে ইন্ডিয়া জোটের হাত শক্তিশালী করবে।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সালের সর্বশেষ লোকসভা নির্বাচনে এই রাজ্যের ৪২টি আসনের মধ্যে তৃণমূল জিতেছিল ২২, বিজেপি ১৮ এবং কংগ্রেস ২টি আসনে। বামফ্রন্ট ছিল শূন্য।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here