লঞ্চের ধাক্কায় ৫ জনের মৃত্যু: রুট পারমিট বাতিল

0
20

রাজধানীর সদরঘাটে রশি ছিঁড়ে লঞ্চের ধাক্কায় ৫ জন নিহতের ঘটনায় এমভি তাসরিফ-৪ ও এমভি ফারহান-৬ এর রুট পারমিট বাতিল করা হয়েছে।

একইসাথে লঞ্চ দু’টির ম্যানেজার, কর্মচারীসহ পাঁচজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। আটক হওয়া পাঁচজনের মধ্যে চারজন দুটি লঞ্চের চালক। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় তাদের আটক করা হয়।

এছাড়া এই ঘটনায় তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করেছে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ)।

নৌ পুলিশের পুলিশ সুপার (ক্রাইম অ্যান্ড অপারেশন) আশিক সাঈদ গণমাধ্যমকে জানান, ওই পাঁচ যাত্রী নিহত হওয়ার ঘটনায় জড়িত অভিযোগে এমভি তাশরিফ-৪ ও এমভি ফারহান-৬ লঞ্চের চার চালকসহ পাঁচজনকে আটক করা হয়েছে। লঞ্চ দুটি ঢাকা থেকে ভোলায় যাতায়াত করে।

এর আগে ফায়ার সার্ভিস জানায়, সদরঘাটের ১১ নম্বর পন্টুনে এমভি তাশরিফ-৪ ও এমভি পূবালী-১ নামের দুটি লঞ্চ রশি দিয়ে বাঁধা ছিল। বেলা তিনটার কিছুক্ষণ আগে এ দুটি লঞ্চের মাঝখান দিয়ে ফারহান নামের আরেকটি লঞ্চ পন্টুনে ঢোকানোর চেষ্টা করা হয়। এ সময় এমভি তাশরিফের রশি ছিঁড়ে লঞ্চে ওঠার জন্য পন্টুনে অপেক্ষমাণ পাঁচ যাত্রীকে আঘাত করে। এতে তারা পন্টুনে পড়ে গুরুতর আহত হন। পরে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here