ঢাবিতে সশরীরে পরীক্ষা, উপস্থিতি শতভাগ

0
28

খবর৭১ঃ দীর্ঘদিন পরীক্ষা বন্ধ থাকার পর সশরীরে পরীক্ষা নিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ফারসি ভাষা ও সাহিত্য বিভাগ। পরীক্ষায় শতভাগ শিক্ষার্থী উপস্থিত ছিলেন।

রবিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের ফারসি ভাষা ও সাহিত্য বিভাগে সপ্তম সেমিস্টারের চূড়ান্ত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। কলাভবনে অবস্থিত পরীক্ষা কেন্দ্রে নিরাপদ দূরত্ব বজায় রেখে ৮১ জন শিক্ষার্থীর সবাই এই পরীক্ষায় অংশ নেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে বিভাগের অধ্যাপক মোহাম্মদ বাহাউদ্দীন বলেন, ‘আগের স্থগিত পরীক্ষাগুলো একাডেমিক কাউন্সিলের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী মার্কস ও সময় কমিয়ে ৬০ নম্বরের পরীক্ষা ৩০ নম্বর করে দেড় ঘণ্টায় নেয়া হয়েছে। আরেকটি বিষয় দেখার মতো, পরীক্ষার্থীর উপস্থিতি ছিল শতভাগ। সাধারণ সময়ে পরীক্ষা হলে দু-একজন অনুপস্থিত, কিন্তু আমরা এমনভাবে পরীক্ষা নিয়েছি যাতে ৮১ জনই উপস্থিত ছিল। একজনেরও আবাসন সমস্যা রেখে পরীক্ষা নিইনি। বিভাগীয় চেয়ারম্যান হিসেবে ব্যক্তিগত উদ্যোগে আবাসনের বিষয়গুলো দেখেছি। কয়েকজন ছাত্রীর আবাসন সমস্যা ছিল তাদেরকে শিক্ষকদের বাসায় রেখেছি।’

অধ্যাপক মোহাম্মদ বাহাউদ্দীন জানান, চলতি মাসের ২২, ২৪ ও ২৬ তারিখে একই সেমিস্টারের বাকি পরীক্ষাগুলো অনুষ্ঠিত হবে এবং ভাইভা হবে ২৭ তারিখ। এছাড়াও পঞ্চম সেমিস্টারের পরীক্ষা ৫ জুলাই ও মাস্টার্সের পরীক্ষা ৩ জুলাই নেয়া হবে।

বিভাগীয় প্রধান, ছাত্র উপদেষ্টা যদি আন্তরিক হয় তবে বাকি বিভাগ বা ইনস্টিটিউটের পরীক্ষাগুলোও নিয়ে নেয়া সম্ভব বলেও মনে করেন তিনি।

পরীক্ষার হল পরিদর্শন শেষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. এ কে এম গোলাম রাব্বানী বলেন, ‘ শিক্ষার্থী ও বিভাগের যৌথ ব্যবস্থাপনায় শতভাগ উপস্থিতিতে আজকে ফারসি বিভাগের পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। এটি একটি ইতিবাচক পদক্ষেপ।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here