ঠাকুরগাঁওয় প্রাকতিক পরিবশে তৈরী হচ্ছে খেজুরের গুড়

0
47
ঠাকুরগাঁওয় প্রাকতিক পরিবশে তৈরী হচ্ছে খেজুরের গুড়

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধিঃ ঠাকুরগাঁও সদর উপজলার বােচাপুুকুর এলাকায় সুগার মিলের খেজুর বাগানের গাছ থেকে খেজুরের রস সংগ্রহ করে প্রাকতিক পরিবেশে গাছিরা তৈরী করছে গুড়। ইতিমধ্য খেজুরের রস ও রস দিয় তৈরীকৃত গুড় বেশ জনপ্রিয় হয় উঠেছে। প্রাকৃতিক পরিবেশে গুড় তৈরীর দৃশ্য দেখতে, রস ও গুড় নিতে স্থানীয়রা সহ বিভিন জেলা থেকে আগত শত শত ক্রেতা ও দর্শনার্থীরা ভিড় করছেন এখান। রসের স্বল্পতার কারণে ক্রেতাদর চাহিদা অনুযায়ী পর্যাপ্ত পরিমাণ উৎপাদন হচ্ছে না গুড়।

ঠাকুরগাঁও সুগার মিলের মােহন ইক্ষু খামারের পার্শ্ব খেজুর বাগানটি মিল কর্তপক্ষর কাছ থেকে রাজশাহী জেলা থেকে ৭ জন গাছি ২২ হাজার টাকায় লিজ নেয়। সর্ব সাকুল্লে গাছিরা বাগান খরচ করে ১ লাখ ২০ হাজার টাকা। বাগনে মােট ৬’শ খেজুর গাছের মধ্য প্রতিদিন ৪’শ গাছ থেকে গড়ে ৫’শ লিটার রস সংগ্রহ করা হয়। এতে গড় ৮০ কজি করে গুড় তৈরী হচ্ছে। গুড় ও রস বিক্রয় করে গাছিরা আর্থিকভাবে লাভবান হচ্ছেন।

গাছি সুজন আলী জানান, প্রাকতিকভাবে ও নির্ভেজাল গুড় তৈরী করায় এখানকার গুড় ও রসের চাহিদা অনক । তাদেরকে বাজারে নিয় গুড় বিক্রয় করার প্রয়াজন হয় না। সরেজমিনেই এসে ক্রেতারা রস ও গুড় ক্রয় করে নিয়ে যায়। অনকে একসপ্তাহ আগেই রস ও গুড় নেওয়ার জন্য অগ্রিম টাকা দিয়ে রাখলেও তাদের আমরা ঠিকভাবে রস ও গুড় দিতে পারছি না। গাছ থেক রস কম উৎপাদন হওয়ার কারণে ক্রতাদের চাহিদা পূরণ করা সম্ভব হচ্ছে না।

সুজন আলী আরও জানান, এখানে খেজুর গাছ গুলাের ঠিকভাবে পরিচর্যা ও গাছ প্রতি এক কজি ইউরিয়া সার প্রয়ােগ করলে গাছ গুলাে মােটা তাজা হবে। আর গাছ মােটা তাজা হলে রস বের হবে আরো বেশি। তখন অনেকাংশে রস ও গুড়ের চাহিদা পূরণ করা সম্ভব হবে।

বর্তমানে এখানে এক লিটার খেজুরের রস ৫০ টাকা দরে ও এক কেজি গুড় ১’শ ৫০ টাকা দরে বিক্রয় করা হচ্ছে।
বাগান খেজুরের রস ও গুড় কিনতে আসা কয়েকজন ক্রেতা জানান, প্রাকৃতিকভাবে ও ভেজাল মুক্ত হওয়ায় এখানকার রস ও গুড় অনেক সু-স্বাদু তাই এর চাহিদা অনেক বশি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here