শীতকালে কমলালেবু খেলে ওজন কমে

0
68
শীতকালে কমলালেবু খেলে ওজন কমে

খবর৭১ঃ সামনেই শীত। শীতকালে পানি সাধারণ কম খাওয়া হয়। এতে হজমে সমস্যা হয়। কমলালেবুতে পানি থাকায় বিপাকে সাহায্য করে। এবং এতে বিদ্যমান সাইট্রিক এসিড শরীরের অতিরিক্ত মেদ কমাতে সাহায্য করে।

ওজন কমাতে বেশিরভাগ মানুষ ডায়েট এবং ব্যায়ামের উপর নির্ভর করেন। ডায়েট এবং ব্যায়ামের কারণে অনেক সময় শরীর দুর্বল হয়ে যায়। কিন্তু ডায়েট কিংবা ব্যায়াম না করে ফল খেয়েও ওজন কমাতে পারেন। বেশিরভাগ ফলই পুষ্টিসমৃদ্ধ এবং স্বাস্থ্যকর। তবে ওজন কমাতে সবচেয়ে কার্যকরী ফল হচ্ছে কমলালেবু।

এই শীতে ওজন কমাতে চাইলে বিশেষজ্ঞদের পরামর্শমতো বেছে নিন কমলালেবু। এই ফল যেমন সুস্বাদু, তেমনই উপকারী। ওজন কমিয়ে ছিপছিপে চেহারা পেতে কমলালেবুর জুড়ি নেই। জেনে নিন কেন আপনার প্রতিদিনের ডায়েটে কমলালেবু রাখা একান্ত জরুরি।

কমলালেবুর মধ্যে ক্যালরি কাউন্ট বেশ কম। এর মধ্যে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি এবং অন্যান্য খাদ্যগুণ। একটা মাঝারি আকারের কমলালেবুর মধ্যে থাকে: ৫০ ক্যালোরি, ০.৯ গ্রাম প্রোটিন, ১৬.২ গ্রাম কার্বোহাইড্রেট, ৩.৪ গ্রাম ফাইবার, ২৩৮ মিলিগ্রাম পটাসিয়াম, ৬১ মিলিগ্রাম ক্যালসিয়াম, ১৭ মিলিগ্রাম ফসফরাস এবং ৬৩.৫ মিলিগ্রাম ভিটামিন সি।

এখন দেখে নেওয়া যাক, নিয়মিত কমলালেবু খেয়ে কী ভাবে ওজন কমাবে সম্ভব। সবচেয়ে প্রথমে যা বলা দরকার, তা হল কমলালেবুর ওয়াটার কনটেন্ট অত্যন্ত বেশি। এই ফলের প্রায় ৮৭ শতাংশই জল। তাই এই ফল আপনাকে হাইড্রেটেড করে রাখবে। শীতকালে নিয়মিত কমলালেবু শরীরে জলের অভাবে টান পড়বে না। কারণ, শীতকালে এমনিতেই আমাদের জল খাওয়ার পরিমাণ কিছুটা কমে যায়।

কমলালেবুতে আছে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার। এর ফলে বাওয়েল মুভমেন্ট ভালো হয় এবং পেট পরিষ্কার হয়ে যায়। ওজন কমাতে হলে পেট পরিষ্কার হওয়া অত্যন্ত জরুরি। ফাইবার বেশি থাকায় একটা কমলালেবু খেয়ে বেশি কিছুক্ষণ পেট ভর্তি থাকে।

গবেষণা বলছে কমলালেবুর মধ্যে যে জলে দ্রবীভূত ভিটামিট সি থাকে, তা ওজন কমাতে অত্যন্ত উপযোগী। পাশাপাশি এই ভিটামিন সি শরীরের ফ্যাট বার্নিং প্রক্রিয়াকে সক্রিয় করে। এই প্রসঙ্গে আরও বলা যেতে পারে যে সব ফলই প্রাকৃতিক ভাবে মিষ্টি। কখনও খুব মিষ্টি কিছু খেতে ইচ্ছে করলে আপনি নির্ভয়ে একটা কমলালেবু খেয়ে নিতে পারেন।

কমলালেবুতে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট রয়েছে। যা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে শরীরকে সুস্থ ও সুন্দর রাখে।

আলফা ও বেটা ক্যারোটিনের মতো ফ্ল্যাভনয়েড অ্যান্টিঅক্সিডেন্টও রয়েছে কমলালেবুতে। যা ক্যান্সারের কোষ ধ্বংশ করে।

কমলালেবুতে বিদ্যমান সোডিয়াম হার্ট ভালো রাখে।

তবে কমলালেবু জুস বানিয়ে খাওয়ার চেয়ে পুরো কমলালেবু চিবিয়ে চিবিয়ে খেলে উপকার বেশি পাবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here