নেত্রকোনার মদনে নবাগত ইউ এন ও বুলবুল আহমেদ তালুকদাদের হস্ত ক্ষেপে বাল্য বিয়ে থেকে রক্ষা পেল ১১ বছরের শিশু কন্যা

0
175
নেত্রকোনার মদনে নবাগত ইউ এন ও বুলবুল আহমেদ তালুকদাদের হস্ত ক্ষেপে বাল্য বিয়ে থেকে রক্ষা পেল ১১ বছরের শিশু কন্যা
ছবিঃ আব্দুল আওয়াল, মদন (নেত্রকোনা) প্রতিনিধি।

খবর৭১ঃ

আব্দুল আওয়াল, মদন (নেত্রকোনা) প্রতিনিধিঃ নেত্রকোনার মদনে নবাগত ইউ এন ও বুলবুল আহমেদ তালুকদার প্রথম কর্ম দিবসেই বন্ধ করে দিয়েছেন বাল্য বিবাহ। তাঁর হস্ত ক্ষেপে মরণনাশা বাল্য বিয়ে থেকে রক্ষা পেল ১১ বছর বয়সি পিতৃহীন শিশু কন্যা বন্যা। ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ২য় বার বিয়ে করতে আসা বরকে দিয়েছেন ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড।

আজ সোমবার রাত ২ টার দিকে মদন পৌরশহরে এ ঘটনা ঘটে। গোপন সংবাদের মাধ্যমে মদন উপজেলা প্রশাসন জানতে পারে যে, মদন পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ডে এমদাদপুর গ্রামের বাসিন্দা মৃত মোফাজ্জলের ১১ বছর বয়সি শিশু কন্যা বন্যার সাথে পৌরসভার ৯ নং ওয়ার্ডের মামুদপুর গ্রামের বাসিন্দা মো: হাজী রহমানের ছেলে মো: আব্দুল্লাহ নিশান ওরফে বাবুর গোপনে বিয়ের প্রস্তুতি চলছে। এ সংবাদের ভিক্তিতে মদন উপজেলার নবাগত ইউ এন ও বুলবুল আহমেদের নেতৃত্বে ৬ সদস্যের একটি টিম পুলিশ প্রশাসনকে সঙ্গে নিয়ে রাত ১১ টা দিকে বৃষ্টিতে ভিজে কনের বাড়িতে উপস্থিত হয়ে দেখেন কনে, কনের মা, বোন ও ভাই কেউ বাড়িতে নেই। সন্দেহ দানাবাঁধে। পরে তারা বরে বাড়িতে গেলে বরের বাবা সব অস্বীকার করে। কিন্তু তাদের ব্যবহারে সন্দেহের সৃষ্টি হয়। পরে তারা বরের বোনের বাড়িতে গিয়ে অনেক খুঁজাখুঁজি করে রাত ২ টার দিকে প্রতিবেশীর ঘর থেকে কনেকে উদ্ধার করে আনে।

পরে উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও নবাগত ইউ এন ও বুলবুল আহমেদ বরের বোনের বাড়ি পুর্ব জাহাঙ্গীরপুরে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে বরকে ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন। এবং কনের মা মেয়েকে প্রাপ্ত বয়স্ক না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে দিবেনা এই মর্মে একটি মুচলেকায় টিপসই দেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা শওকত জামিল, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা আ: আহাদ, উপজেলা হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা হাবিবুল বাশার, নির্বাচন কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ের সি এ সাইদুল ইসলাম ও করোনা প্রতিরোধে উপজেলা প্রশাসন কর্তৃক গঠিত সেচ্ছাসেবক কমিঠির সমন্বয়ক আব্দুল আওয়াল। উল্লেখ্য, বুলবুল আহমেদ তালুকদার নেত্রকোনা সদর থানার এসিল্যান্ড থেকে পদন্নোতি প্রাপ্ত হয়ে ০৫/০৭/২০ ইং রোজ রবিবার মদন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসাবে যোগদান করেন। তিনি রাতে এই সংবাদটি পেয়ে নিজে ঘটনা স্থলে ছুটে যান। তাঁর এমন কর্মতৎপরতা মদনবাসীর মুখে মুখে প্রশংসিত হচ্ছে। মদন থানা পুলিশের এস আই নুরুল আমিন জানান, বাল্য বিয়ের কবল থেকে ১১ বছরের শিশু কন্যা বন্যা উদ্ধার করে বরসহ মোবাইল কোর্টের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট বুলবুল আহমেদ তালুকদার মহোদয়ের নিকট সোপর্দ করি।

মদন উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও নির্বাহী কর্মকর্তা বুলবুল আহমেদ তালুকদার জানান, গোপন সংবাদের ভিক্তিতে জানতে পারি যে, মদন পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ডের এমদাদপুর গ্রামের মৃত মোফাজ্জলের ১১ বছর বয়সি শিশু কন্যা বন্যার সাথে একই পৌরসভার ৯ নং ওয়ার্ডের হাজী রহমানের বিবাহিত ছেলে মো: আব্দুল্লাহ নিশান ওরফে বাবুর বিয়ের প্রস্তুতি চলছিল। স্ত্রী বর্তমান থাকতেও স্ত্রীর অনুমতি না নিয়ে শিশু কন্যার সাথে বাল্যবিবাহেরর প্রস্তুতি গ্রহণ করার অপরাধে বর আব্দুল্লাহ নিশান ওরফে বাবুকে ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করি। আর কনের মায়ের কাছ থেকে প্রাপ্ত বয়স্ক না হওয়া পর্যন্ত অন্যত্র বিয়ে দিবে না এই মর্মে একটি মুচলেকা নিয়ে শিশু বন্যাকে পুলিশ হেফাজতে তার বাড়িতে প্রেরণ করি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here