বাঁচা-মরা নিয়ে ইনস্টাগ্রামে জরিপ শেষে কিশোরীর আত্মহত্যা

0
9

খবর৭১ঃমালয়েশিয়ার এক কিশোরী ইনস্টাগ্রামে একটি জরিপের আয়োজন করেছে যে তার বেঁচে থাকা উচিত নাকি মরে যাবে? ফলোয়াররা যেটায় বেশি সায় দেবেন, ১৬ বছর বয়সী কিশোরী সেটাই করবে বলে জানায়। পরবর্তীতে তার মরে যাওয়া উচিত বলে অধিকাংশ ফলোয়ার রায় দেন।-খবর গার্ডিয়ান অনলাইনের

এভাবেই আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছে ওই মালয়েশীয় কিশোরী। মেয়েটির পরিচয় প্রকাশ না করেই দেশটির সারাওয়াক রাজ্যের পুলিশ জানায়, ইনস্টাগ্রামে সে পোস্ট দিয়েছে, ‘এটা সত্যিই গুরুত্বপূর্ণ যে আমার বেঁচে থাকা উচিত নাকি মরে যাব? এটা যাচাই করতে সবাই আমাকে সহায়তা করুন।’

তার মৃত্যুর পর এক আইনজীবী বলেন, যারা তার মৃত্যুর পক্ষে ভোট দিয়েছেন, তাদের সবাইকে আত্মহত্যার প্ররোচনাকারী হিসেবে দোষী সাব্যস্ত করা উচিত।

উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য পেনাংয়ের আইনজীবী ও এমপি রামকারপাল সিং প্রশ্ন রাখেন, যদি তার ইনস্টাগ্রামের অধিকাংশ নেটিজেন তার বেঁচে থাকার পক্ষে রায় দিতেন, তবে সে এখনো কি বেঁচে থাকতো না?

মালয়েশিয়ার যুব ও ক্রীড়ামন্ত্রী সাইয়েদ সাদিক সাইয়েদ আবদুল রহমান বলেন, দেশের নাগরিকদের মানসিক স্বাস্থ্য নিয়ে জাতীয় পর্যায়ের আলোচনার প্রয়োজনীয়তাকে সামনে নিয়ে এসেছে এই ঘটনা। আর তরুণদের মানসিক স্বাস্থ্য নিয়ে আমি সত্যিকারভাবেই হতাশ। এটা জাতীয় ইস্যু, যা গুরুত্বের সঙ্গে দেখতে হবে।

আত্মঘাতী ছবি বন্ধ করে দিতে তদন্ত চালাবে বলে গত ফেব্রুয়ারিতে জানিয়েছে ইনস্টাগ্রাম। ২০১৭ সালে আত্মহনন ও আত্ম-ক্ষতের ছবি দেখে ১৪ বছর বয়সী কিশোর মোলি রুসেল আত্মহত্যা করেছেন বলে তার পরিবার দাবি করে। এরপরেই ইনস্টাগ্রাম এমন উদ্যোগ নেয়ার কথা জানিয়েছিল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here