ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে যান চলাচলের জন্য উন্মুক্ত

0
89

ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ের হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ফার্মগেট প্রান্ত পর্যন্ত অংশের উভয়দিকে আজ রোববার (৩ সেপ্টেম্বর) সকাল ৬টা থেকে যানবাহন চলাচলের জন্য উন্মুক্ত করা হয়েছে।

শনিবার (২ সেপ্টেম্বর) বিকেল সাড়ে তিনটায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিমানবন্দর প্রান্তের কাওলা অংশে নামফলক উন্মোচনের মাধ্যমে বহুল কাঙ্ক্ষিত দেশের প্রথম ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ের উদ্বোধন করেন।

এরপর কাওলা প্রান্ত থেকে টোল দিয়ে এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়েতে ওঠেন প্রধানমন্ত্রী। প্রায় ১১ কিলোমিটার এক্সপ্রেসওয়ে ১৪ মিনিটে পার হয়ে তিনি আগারগাঁওয়ে পুরাতন বাণিজ্য মেলা মাঠে সুধী সমাবেশে পৌঁছান। সেখানে রাখা উদ্বোধনী ফলক উন্মোচন এবং পরে দোয়া ও মোনাজাতে অংশ নেন শেখ হাসিনা।

পরে আগারগাঁওয়ে ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ের একাংশের উদ্বোধন উপলক্ষে আয়োজিত সুধী সমাবেশে বক্তব্য দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ সময়ে তাঁর ছোট বোন শেখ রেহানা মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষের বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়েতে দুই ও তিন চাকার যানবাহন এবং পথচারী চলাচল সম্পূর্ণ নিষেধ। এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ের ওপর যেকোনো ধরনের যানবাহন দাঁড়ানো ও যানবাহন থেকে নেমে ছবি তোলা সম্পূর্ণ নিষেধ। এক্সপ্রেসওয়ের মূল সড়কে সর্বোচ্চ গতিসীমা ঘণ্টায় ৬০ কিলোমিটার এবং ওঠা-নামার র‌্যাম্পের জন্য সর্বোচ্চ গতিসীমা থাকবে ৪০ কিলোমিটার।

বিজ্ঞপ্তিতে নির্ধারিত টোল পরিশোধ করে নিম্নবর্ণিত স্থানগুলো হতে ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়েতে ওঠা-নামা করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হয়।

উত্তরা হতে দক্ষিণ অভিমুখী যানবাহন ওঠার স্থান

১. হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের দক্ষিণে কাওলা

২. প্রগতি সরণি ও বিমানবন্দর সড়কের আর্মি গলফ ক্লাব।

নামার স্থান

১. বনানী কামাল আতার্তুক অ্যাভিনিউ

২. মহাখালী বাস টার্মিনালের সামনে

৩. ফার্মগেট প্রান্তে ইন্দিরা রোডের পাশে

দক্ষিণ হতে উত্তর অভিমুখী যানবাহন ওঠার স্থান

১. বিজয় সরণি ওভারপাসের উত্তর ও দক্ষিণ লেন

২. বনানী রেলস্টেশনের সামনে

নামার স্থান

১. মহাখালী বাস টার্মিনালের সামনে

২. বনানী কামাল আতার্তুক অ্যাভিনিউয়ের সামনে বিমানবন্দর সড়ক

৩. কুড়িল বিশ্বরোড

৪. বিমানবন্দরের তৃতীয় টার্মিনালের সামনে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here