বিরামপুরে লুঙ্গি পেঁচিয়ে ভিক্ষুককে হত্যা

0
137

মোঃ আবু সাঈদ ,বিরামপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধিঃ
দিনাজপুর জেলার বিরামপুরে নিজের পরনের লুঙ্গি গলায় পেঁচিয়ে বাবলু চন্দ্র (৪২) নামের এক ভিক্ষুককে দুর্বৃত্তরা হত্যা করেছে।

রবিবার(২৯ আগষ্ট) দুপুরে বিরামপুর উপজেলায় জোতবানী ইউনিয়নের পাঁচোহাট এলাকা থেকে ঐ ভিক্ষুকের মরদেহ উদ্ধার করেন বিরামপুর থানা-পুলিশ।

নিহত বাবলু চন্দ্র (৪২) বিরামপুর উপজেলা জোতবানী ইউনিয়নের দেউল গ্রামের সুনিল চন্দ্রের ছেলে।

স্থানীয় জোতবানী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক হোসেন জানান, বাবলু একজন ভিক্ষুক। ভিক্ষা করে তাঁর সংসার চলে। প্রতিদিনই বাজারের সবজি কুঁড়িয়ে বাড়ি চলে যান।বাবলু’র বাড়িতে মা,বাবা ও স্বামী পরিত্যক্তা এক বোন আছে। প্রায় ১০বছর আগে স্ত্রী তাঁকে ছেড়ে চলে যায়। তখন থেকে পাগল প্রায় ভিক্ষা করে চলে।

চেয়ারম্যান আরো জানান, শনিবার (২৮ আগষ্ট) সন্ধায় নিজ বাড়ি থেকে বাজারের উদ্দেশ্যে রওনা হন। এরপর রাতে সে বাসায় ফিরে আসেনি। আজ দুপুরে পাথহার এলাকায় রাস্তার পাশে একটি ঘাসের জমির পাশে মরদেহ দেখে পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ এসে মরদেহ উদ্ধার করে।

এবিষয়ে বিরামপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সুমন কুমার মহন্ত বলেন, স্থানীয়দের খবরের ভিত্তিতে নিহত বাবলু চন্দ্রের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে এটি একটি হত্যা কাণ্ড। ঐ ব্যক্তির পরনের লুঙ্গি গলায় পেঁচিয়ে তাঁকে হত্যা করা হয়েছে। মরদেহটি ময়না তদন্তের জন্য দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here