মাস্ক পরাসহ স্বাস্থ্যবিধি মানাতে ঢাকায় নামছে ভ্রাম্যমাণ আদালতঃ মন্ত্রিপরিষদ

0
43
মাস্ক পরাসহ স্বাস্থ্যবিধি মানাতে ঢাকায় নামছে ভ্রাম্যমাণ আদালত

খবর৭১ঃ মহামারি করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ সামলাতে মাস্ক পরিধানসহ স্বাস্থ্যবিধি মানার ওপর জোর দিচ্ছে সরকার। সে লক্ষ্যে রাজধানীতে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনার নির্দেশ দিয়েছে মন্ত্রিসভা। দুই-তিনদিনের মধ্যেই ভ্রাম্যমাণ আদালত কাজ শুরু করবে।

সোমবার মন্ত্রিসভার ভার্চুয়াল বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত হয়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে এবং মন্ত্রিপরিষদের অন্য সদস্যরা সচিবালয় থেকে সভায় যোগ দেন। সভা শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম সচিবালয়ে সাংবাদিকদের এ ব্যাপারে বিস্তারিত জানান।

গত মার্চে দেশে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঘটে। বৈশ্বিক এই ভাইরাসটিতে দেশে এখন পর্যন্ত ছয় হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছেন। আক্রান্ত হয়েছেন চার লাখের বেশি। অন্য অনেক দেশের তুলনায় বাংলাদেশের অবস্থা ভালো থাকলেও আগামী শীতে ভাইরাসটির দ্বিতীয় ঢেউয়ে অবস্থার অবনতি হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। সেই আশঙ্কা থেকে সরকার স্বাস্থ্যবিধি মানানোর প্রতি জোর দিচ্ছে। তবে অবস্থার অবনতি হলেও আরেক দফা সাধারণ ছুটি বা লকডাউনের কোনো পরিকল্পনা নেই বলে ইতিমধ্যে সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে গত জুলাই মাসের শেষ দিকে বাসার বাইরে সব জায়গায় সবার মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করে সরকার। সবার মাস্ক পরা নিশ্চিত করতে বিভিন্ন জেলায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে জরিমানাও করা হচ্ছে। তবে রাজধানী ঢাকায় করোনা সংক্রমণের হার বেশি হলেও মানা হচ্ছে না মাস্ক পরার বিধান। উপেক্ষা করা হচ্ছে স্বাস্থ্যবিধিও।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, ‘কোভিড নিয়ে আরও সতর্ক থাকার কথা বলেছেন প্রধানমন্ত্রী। মাস্কসহ স্বাস্থ্যবিধি মানাতে দুই দিনের মধ্যে ঢাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনার নির্দেশ দিয়েছেন।’ এ সময় সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রিপরিষদ সচিব জানান, আগামী দুই-তিনদিনের মধ্যেই ভ্রাম্যমাণ আদালত নামবে।

আলোচ্যসূচির বাইরে মন্ত্রিসভার বৈঠকে কী আলোচনা হয়েছে সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে সচিব বলেন, ‘আজকে ডিজাস্টার নিয়ে একটু আলোচনা হয়েছে। কোভিড নিয়ে বলা হয়েছে, আরেকটু স্ট্রিক্ট ভিউতে যেতে হবে। একটু বেড়েও যাচ্ছে মনে হচ্ছে। সেজন্য আরেকটু প্রি-কশান (সতর্কতা) নেয়ার জন্য বলা হয়েছে। ডিজাস্টারকে আরেকটু কম্প্রিহেনসিভ প্রেজেন্টেশনের জন্য ক্যাবিনেটে নিয়ে আসার জন্য বলা হয়েছে।’

সচিব জানান, মন্ত্রিসভার বৈঠকে ‘আমার বাড়ি, আমার খামার’ প্রকল্পের সুবিধাভোগীদের জন্য সঞ্চয় স্কিম করার নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। এছাড়া আর্থিক ব্যবস্থাকে পুরো ডিজিটালাইজেশন কার্যক্রম আরও এগিয়ে নিতে ‘ জাতীয় আর্থিক অন্তর্ভুক্তি কৌশল’ এর খসড়ারও অনুমোদন দেয়া হয় আজকের বৈঠকে।

আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, তুরস্কে রপ্তানি বাড়ানোর জন্য বাংলাদেশ-তুরস্ক মিউচুয়াল এসিসটেন্ট ইন কাস্টমস ম্যাটার চুক্তি মন্ত্রিসভা অনুমোদন দিয়েছে। এছাড়া জাতীয় পারমাণবিক ও তেজস্ক্রিয়তা বিষয়ক জরুরি অবস্থায় প্রস্তুতি ও সাড়াদান পরিকল্পনার খসড়া অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here