মধ্যরাতে প্রাইভেটকার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ছাত্রলীগের চার কর্মী নিহত

0
38

সিলেটের জৈন্তাপুরে প্রাইভেটকার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নদীতে পড়ে চারজন নিহত হয়েছেন। শুক্রবার (১৯ জানুয়ারি) দিবাগত রাত পৌনে ১২টার দিকে উপজেলার বাংলাবাজার এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- উপজেলার নিজপাট লামাপাড়া গ্রামের জহুরুল মিয়ার ছেলে জুবায়ের আহসান (২৬), নিজপাট তোয়াসীহাটি গ্রামের রনদিপ পালের ছেলে নিহাল পাল (২৫), নিজপাট পানিহারাহাটি গ্রামের আরজু মিয়ার ছেলে মেহেদী হোসেন তমাল (২৪) ও নিজপাট জাঙ্গালহাটি গ্রামের হারুন মিয়ার ছেলে সুমন আহমদ (২৫) ৷ নিহতরা সবাই জৈন্তাপুর উপজেলা ছাত্রলীগের কর্মী বলে জানা গেছে।

এদিকে এ ঘটনায় জৈন্তাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভাঙচুর করেছে ছাত্রলীগ নেতাকর্মী ও স্থানীয়রা।

স্থানীয় সূত্রে জানা য়ায়, শুক্রবার দিবাগত রাত ১১টা ৪৫ মিনিটের সময় জৈন্তাপুর থেকে প্রাইভেটকার নিয়ে জাফলংয়ে যাচ্ছিলেন উপজেলা ছাত্রলীগের ৪ কর্মী ৷ ৪ নম্বর বাংলাবাজার এলাকায় পৌঁছালে তাদের প্রাইভেটকার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ব্রিজের নিচে পড়ে যায়।

দুর্ঘটনার বিষয়ে জৈন্তাপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কামাল আহমদ বলেন, নিহতরা সবাই তামাবিল স্থলবন্দরে যাচ্ছিলেন ৷ ৪নং বাংলাবাজার এলাকায় পৌঁছালে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে প্রাইভেটকার নদীতে পড়ে যায়। স্থানীয়রা উদ্ধার করে জৈন্তাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে এলে কর্তব্যরত চিকিৎসক দুইজনকে মৃত ঘোষণা করেন এবং দুইজনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় সিলেটে পাঠান ৷ সিলেটে নিয়ে যাওয়ার পথে আরও দুইজন মারা যান।

জৈন্তাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. তাজুল ইসলাম বলেন, মরদেহ উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠানো হয়। পরে সেখান থেকে সিলেটের ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

তামাবিল হাইওয়ে থানার উপপরিদর্শক ইউনুছ আলী বলেন, দুর্ঘটনার পর হতাহতদের উদ্ধার করে সিলেট এমএজি ওসমানী হাসপতালে নেওয়া হয়। সেখানে চারজনকেই মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। এরপর প্রশাসনের অনুমতি নেওয়ায় ময়নাতদন্ত ছাড়াই নিহতদের মরদেহ তাদের স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here