ঢাবিতে ‘মদের আসরে’ ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ

0
26

খবর৭১ঃ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক হলে ‘মদের আসরে’ বসে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে কয়েকজন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

হলের মূল ভবনের ছাদে বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শীদের ভাষ্য, গতকাল (বৃহস্পতিবার) মধ্যরাতে হল ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রুবেল হোসেনের অনুসারী রাকিবুল হাসান রাহিসহ আরও কয়েকজন ছাত্রলীগকর্মী হলের ছাদে বিয়ার খাচ্ছিলেন। একই সময়ে ছাদে হল ছাত্রলীগের সভাপতি কামাল উদ্দিন রানার অনুসারী আসাদুজ্জামান ফরিদ ও তার কয়েকজন বন্ধুকে নিয়ে সেখানে মাদক সেবন করছিলেন। নেশাগ্রস্ত অবস্থায় উচ্চস্বরে গান গাওয়া নিয়ে দুই গ্রুপের মধ্যে কথা কাটাকাটি শুরু হয়। এ সময় রাহি ও তার বন্ধুদের সেখান থেকে চলে যেতে বলেন ফরিদ। কিন্তু রাহি যেতে না চাইলে কথা কাটাকাটির এ পর্যায়ে রাহিকে থাপ্পড় মারেন ফরিদ। তখন রাহি বিষয়টি তার ‘বড় ভাইদের’ জানালে তারা ছাদে গিয়ে রাহিকে থাপ্পড় মারার কারণ জানতে চান। এ সময় তর্ক-বিতর্কের একপর্যায়ে দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ হয়।

এই মারামারিতে হল ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের ৭০-৮০ জন নেতাকর্মী অংশ নেন বলেও জানান প্রত্যক্ষদর্শীরা। তাদের ভাষ্য, খবর পেয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের জন্য হল ছাত্রলীগের সভাপতি কামাল উদ্দিন রানা সেখানে যান। তার উপস্থিতিতেও কিছুক্ষণ দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ চলতে থাকে। পরে দুই গ্রুপের নেতারা হলের অতিথি কক্ষে বসে বিষয়টি সমাধান করেন।

মদের আসরের বিষয়টি অস্বীকার করে হল ছাত্রলীগের সভাপতি কামাল উদ্দিন রানা বলেন, ‘রাতে ছাদে উচ্চস্বরে গান গাওয়াকে কেন্দ্র করে জুনিয়রদের সঙ্গে সিনিয়র কিছু শিক্ষার্থীর কথা কাটাকাটি হয়। পরে আমরা গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসি।’

একই কথা বলেন হল ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রুবেল হোসেন।

সার্জেন্ট জহুরুল হক হলের প্রাধ্যক্ষ আবদুর রহিম বলেন, ‘এমন একটি অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনার খবর পেয়েছি। কেউ এ বিষয়ে অভিযোগ দিলে আমরা তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেব।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here