আদার তেলের যত উপকারিতা

0
43

খবর৭১ঃ  আদা আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী একথা সবারই জানা। উপকারী এই ভেষজে আছে প্রয়োজনীয় অনেক পুষ্টি উপাদান। অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ও অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল বৈশিষ্ট্য সমৃদ্ধ আদা মুক্তি দিতে সাহায্য করে সর্দি ও কাশি থেকে। শুধু স্বাস্থ্যের জন্যই নয়, আদা উপকারী ত্বক ও চুলের জন্যও। আদার পাশাপাশি এর তেলও সমান কার্যকরী। এটি অনেক স্বাস্থ্য সম্পর্কিত সমস্যার সমাধান করে। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে আদার তেল। চলুন জেনে নেওয়া যাক এর উপকারিতা-

ব্যথা কমায়

শরীরের কোনো অংশে ব্যথা হলে তা নিরাময় করতে আপনাকে সাহায্য করবে আদার তেল। বিশেষ করে পেশী এবং জয়েন্টের ব্যথা নিরাময়ে আদার তেল কার্যকরী। এই তেল ব্যবহারে শরীরের পেশী ও জয়েন্টের ব্যথা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। জয়েন্টে ব্যথা হলে আদার তেল ব্যবহার করতে পারেন।

শ্বাসকষ্ট দূর করে

শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যায় সমাধান দিতে পারে আদার তেল। এটি গলা ও নাক থেকে শ্লেষ্মা পরিষ্কার করতে সাহায্য করে। ফলে সর্দি-কাশি থেকে মুক্তি পাওয়া সহজ হয়। আপনার যদি শ্বাসকষ্ট বা সর্দি-কাশির সমস্যা থাকে তবে তা থেকে মুক্তি পেতে বিভিন্ন উপায়ে আদার তেল ব্যবহার করতে পারেন।

পাচনতন্ত্রের উন্নতি করে

পাচনতন্ত্রের উন্নতি করতে সাহায্য করে আদার তেল। আপনি যদি নিয়মিত আদার তেল খেয়ে থাকেন তবে তা আপনার পরিপাকতন্ত্রের উন্নতি করবে। এছাড়া খাবারের স্বাদ বাড়াতেও ব্যবহার করা যেতে পারে আদার তেল।

শর্করার নিয়ন্ত্রণ করে

সুস্থ থাকার জন্য রক্তে শর্করার নিয়ন্ত্রণ করা খুব জরুরি। আর এই কাজে আপনাকে সাহায্য করতে পারে আদার তেল। এতে আছে অ্যান্টি ডায়াবেটিক বৈশিষ্ট্য। ফলে নিয়মিত আদার তেল খেলে তা আপনাকে হার্ট সংক্রান্ত রোগ থেকে দূরে রাখে। হার্টের রোগীদের ক্ষেত্রে আদার তেল ভীষণ উপকারী ভূমিকা রাখে।

কোলেস্টেরল কমাতে সাহায্য করে

আমাদের শরীর থেকে ক্ষতিকর কোলেস্টেরল দূর করতে পারাটা এখন বড় চ্যালেঞ্জ। নয়তো এই ক্ষতিকর কোলেস্টেরলের কারণে হার্টের বিভিন্ন সমস্যা দেখা দিতে পারে। আদার তেল আমাদের শরীর থেকে ক্ষতিকর কোলেস্টেরলের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে এবং সেইসঙ্গে হার্টের বিভিন্ন অসুখ থেকে দূরে রাখে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here