“শিক্ষিকার পরিবার একঘরে” প্রতিবাদে বাগেরহাটে সংবাদ সম্মেলন

0
22

স্টাফ রিপোর্টার,বাগেরহাট:
সমাজপতির দ্বারা ঘোষনায় শিক্ষিকার পরিবারকে একঘরে করার অভিযোগ ওঠার পর ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছে চিতলমারী উপজেলার পাঙ্গাশিয়া গ্রামবাসি। শনিবার দুপুরে বাগেরহাট প্রেসক্লাবে লিখিত বক্তব্যে পাঠ করেন চিতলমারী উপজেলার মুক্তবাংলা চারিপল্লী মাধ্যমিক বিদ্যালয় সহকারি প্রধান শিক্ষক ও স্থানীয় সমাজপতি মৃনাল কান্তি গুহ।
লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, আমরা সনাতন হিন্দু সম্প্রদায় ধর্মীয় মতে বিশ্বাস করি যে, বাবার মৃত্যুর পর সন্তানের মাথা মুন্ডন করা, তুলসি তলায় জলসহ নানা ধর্মীয় আচার করা হয়। কিন্তু গ্রামের অধিকাংশ হিন্দু পরিবার গুলো এই বিষয়টি মেনে চললেও গ্রামের মতুয়া সম্প্রদায়ের কিছু পরিবার ও লোক এই রীতি-নীতি মানতে নারাজ। মূলত এই নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে স্থানীয় হিন্দু সম্প্রদায় ও মতুয়া সম্প্রদায়ের সাথে দ্বন্ধ চলে আসছে। সম্প্রতি বার্ধক্যজনিত কারনে কালিদাস মন্ডল নামের এক ব্যাক্তি মারা যাওয়ার পর রীতি-নীতি অনুয়ায়ী সমাজিক অনুষ্ঠান না করায় গ্রামের অধিকাংশ মানুষ ক্ষুব্ধ হয়। এ বিষয়টি ভিন্নখাতে নেয়ার জন্য গ্রামের সভা রঞ্জন গুহকে কালিদাস মন্ডলের শ্রদ্ধানুষ্ঠানে যাওয়ার অপরাধে একঘরে করা হয়েছে মিথ্যা সংবাদ ছড়ানো হচ্ছে। যেটি আদৌ সত্য নয়।
লিখিত বক্তব্যে মৃনাল কান্তি গুহ আরও বলেন, অভিযোগ করা হচ্ছে আমি নাকি ঘোষনা দিয়েছি সভা রঞ্জনকে একঘরে করা হয়েছে। যা সম্পূর্ণ মিথ্যা। মূলত আমার প্রতিপক্ষের লোকজন গ্রামে বিভেধ সৃষ্টির লক্ষ্যে ও আমাকে হেও প্রতিপন্ন করার জন্য সাংবাদিকদের মিথ্যা তথ্য দিয়ে সংবাদ পরিবেশন করিয়েছেন।
সংবাদ সম্মেলনে পাঙ্গাশিয়া গ্রামের তুষার কান্তি গুহ, বিধান চন্দ্র গুহ, অনাদী রঞ্জন গুহ, অন্নদা গুহ, আশীষ কুমার গুহসহ আরও অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here