অতিরিক্ত কফি পান অ্যালকোহলের চেয়েও ক্ষতিকর

0
196

খবর৭১ঃ শরীর চাঙ্গা করতে সকাল-বিকেলে অনেকেই কফির পেয়ালায় চুমুক দেন। চায়ের পাশাপাশি অনেকেই কফি পান করতে ভালোবাসেন। দিনে এক দুই কফি পান করলে সমস্যা নেই, কিন্তু অতিরিক্ত কফি পান স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর।

পুষ্টি বিজ্ঞানীরা বলছেন, অত্যধিক কফি পান অ্যালকোহলের থেকেও বেশি ক্ষতিকর। অত্যধিক কফি পান আমাদের শরীরের কী কী ভাবে ক্ষতি করে, তাও জানিয়েছেন পুষ্টি বিজ্ঞানীরা।

সকাল থেকে রাত পর্যন্ত যখন মন চাইছে, তখনই কফি পান করছেন? বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন যে, অত্যধিক পরিমাণে কফি খেলে আমাদের শরীরে উত্তেজনা বা উদ্বেগ বেশি পরিমাণে তৈরি হয়। কফিতে থাকা উপাদান মস্তিস্ককে ক্লান্ত করে দেয়। ফলে যতই আপনি এনার্জি পাওয়ার জন্য কফি খান না কেন, অত্যধিক পরিমাণে কফি খেলে তা এনার্জি তো বাড়াচ্ছেই না উল্টে আপনাকে আরও বেশি ক্লান্ত করে দিচ্ছে। তাই বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ, সারাদিনের দু কাপের বেশি কফি খাওয়া একেবারেই উচিৎ নয়।

কফি আমাদের শরীর এবং মস্তিষ্ককে সচল রাখতে সাহায্য করে। এর ফলে অনিদ্রার সমস্যা দেখা দেয়। পড়ুয়া থেকে চাকরিরত অনেকেই বেশিক্ষণ জেগে থাকার জন্য কাপের পর কাপ কফি খেয়ে থাকেন। যা আসলে শরীরে অনিদ্রার সমস্যা তৈরি করে।

অ্যালকোহলের অভ্যাস ছাড়াও থেকেও কঠিন কফির নেশা ছাড়ানো। বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন যে, একবার কফি খাওয়ার অভ্যাস হয়ে গেলে, তা থেকে বেরিয়ে আসা খুবই মুশকিল হয়।

খালি পেটে একেবারেই কফি খাওয়া উচিৎ নয় বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। এতে শরীরে এনার্জির আসার পরিবর্তে শরীর আরও ক্লান্ত হয়ে যায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here