কাতারের আমির ঢাকায়

0
15

দুদিনের সফরে ঢাকায় এসেছেন কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানি। সোমবার (২২ এপ্রিল) বিকেল ৫টায় তিনি ঢাকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে পৌঁছান।

মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, সফরে কাতারের আমিরের সফরে প্রায় ১০টি চুক্তি ও সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) সই হতে পারে। সম্ভাব্য চুক্তির বিষয়গুলোর মধ্যে রয়েছে ব্যবসা ও বিনিয়োগ বৃদ্ধি, বন্দি বিনিময়, দ্বৈত কর প্রত্যাহার ও শুল্ক বিষয়ে পারস্পরিক সহযোগিতা। এছাড়া সম্ভাব্য সমঝোতা স্মারকের (এমওইউ) বিষয়গুলোর মধ্যে রয়েছে বাংলাদেশ থেকে কাতারে জনশক্তি রফতানি, ধর্মীয় বিষয়ে সহযোগিতা, বন্দর ব্যবস্থাপনায় কাতারের প্রতিষ্ঠান মাওয়ানির যুক্ততা, উচ্চ শিক্ষায় সহযোগিতা ও কূটনীতিকদের প্রশিক্ষণ।

সূত্র জানিয়েছে, আগামীকাল মঙ্গলবার (২৩ এপ্রিল) সকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানিকে তার কার্যালয়ে অভ্যর্থনা জানাবেন। সেখানে তাদের মধ্যে বৈঠকের পর দ্বিপক্ষীয় আরো একটি বৈঠক অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

দুই নেতা সহযোগিতাবিষয়ক সই অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন এবং যৌথ সংবাদ সম্মেলনে যোগ দেবেন। সেখানে পরিদর্শন বইয়ে সই শেষে কাতারের আমির মঙ্গলবার বিকালে বঙ্গভবনে যাবেন এবং রাষ্ট্রপতি তাকে অভ্যর্থনা জানাবেন। রাষ্ট্রপতি সাহাবুদ্দিন বঙ্গভবনের দরবার হলে কাতারের আমিরের সম্মানে মধ্যাহ্নভোজের আয়োজন করবেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী হাছান মাহমুদ কাতারের আমিরের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করবেন।

কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানির নামে রাজধানীর একটি সড়ক ও একটি পার্কের নামকরণ করা হবে। ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) আওতাধীন মিরপুরের কালশী এলাকায় পার্ক এবং মিরপুর ইসিবি চত্বর থেকে কালশী ফ্লাইওভার পর্যন্ত সড়ক উদ্বোধন করবেন তিনি। এছাড়া বাংলাদেশের ব্যবসায়ী সম্প্রদায়ের সদস্যদের সঙ্গে বৈঠক করবেন কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানি।

মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৬টায় একটি বিশেষ ফ্লাইটে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ঢাকা ত্যাগ করার কথা রয়েছে আমিরের। পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বিমানবন্দরে তাকে বিদায় জানাবেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত বছরের মার্চে কাতারের রাজধানী দোহায় স্বল্পোন্নত দেশগুলোর জাতিসংঘ সম্মেলনের ফাঁকে কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানির সঙ্গে বৈঠক করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here