অধিনায়কত্ব করবেন না আর মাশরাফি

0
163
আর অধিনায়কত্ব করবেন না মাশরাফি

খবর৭১ঃ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আর অধিনায়কত্ব করতে দেখা যাবে না মাশরাফি বিন মুর্তজাকে। আগামীকাল সিলেটে জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে তৃতীয় ওয়ানডে দিয়েই জাতীয় দলের অধিনায়কত্ব পদ থেকে সড়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন তিনি। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে সিলেটে ম্যাচের পূর্ববর্তী এক সংবাদ সম্মেলনে মাশরাফি এমনটি জানান।

এসময় মাশরাফি জানান, খেলোয়াড় হিসেবেই তিনি চ্যালেঞ্জ নিতে চান। ক্রিকেটার অথবা বোর্ডের প্রতি কোন অভিমান নেই বলেও জানিয়ে দিয়েছেন বাংলাদেশ দলের সফল এই অধিনায়ক।

সংবাদ সম্মেলনে মাশরাফি বলেন, বাংলাদেশ দলের সকল সিনিয়র খেলোয়ারদেরই অধিনায়কত্ব করার যোগ্যতা রয়েছে। এসময় দলের কঠিন সময়গুলোর স্মৃতিচারণ করে মাশরাফি বলেন, ক্রিকেট আমার রক্তের ভেতরে র‍য়েছে। বাংলাদেশ ক্রিকেটের যে কোন বিষয়ে পাশে থাকার আশ্বাস দেন মাশরাফি বিন মুর্তজা

পরে লিখিত বক্তব্য পড়ে শোনার মাশরাফি। লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, ‘আমি…কাল আমার অধিনায়ক হিসেবে শেষ ম্যাচ। আমার প্রতি দীর্ঘ সময় আস্থা রাখার জন্য বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডকে ধন্যবাদ জানাই। ধন্যবাদ জানাই আমার নেতৃত্বে যত খেলোয়াড় খেলেছে বাংলাদেশ দলে। সবাইকে ধন্যবাদ জানাই। শেষ পাঁচ-ছয় বছরের যে সফর ছিল…আমি নিশ্চিত এ প্রক্রিয়াটা এতোটা সহজ ছিল না।’

‘টিম ম্যানেজমেন্ট যারা ছিল, যাদের তত্ত্বাবধানে আমি খেলেছি, আমি অধিনায়কত্ব করেছি তারা সবাই আমাকে ক্লোজলি অনেক সহযোগীতা করেছে এবং আমার অধিনায়কত্ব যতটুকু মনে পড়ছে হাথুরুসিংহকে দিয়ে শুরু হয়েছিল। তার আগে হয়তো দুই-তিন দফা পেয়েছি কিন্তু ইনজুরির কারণে করতে পারিনি। কিন্তু ফাইনালি শুরু হয় হাথুরুসিংহকে দিয়ে। এরপর খালেদ মাহমুদ সুজন, স্টিভ রোডস এবং ডমিঙ্গো দিয়ে শেষ হচ্ছে। নির্বাচক এবং বোর্ডের কর্মকর্তা যারা আছেন প্রত্যেক বোর্ড স্টাফ থেকে শুরু করে সবাইকে ধন্যবাদ সবার সহযোগীতার জন্য।’

‘আমি ধন্যবাদ দিতে চাই আপনাদের…আপনারা যারা আছেন মিডিয়ার, আপনারা প্রত্যেকে অত্যন্ত সহযোগিতা করেছেন। সবশেষে অবশ্যই সমর্থক যারা বাংলাদেশ ক্রিকেটের প্রাণ। আপনাদের সহযোগিতা ছাড়া এটা কোনোভাবেই সম্ভব হতো না। আপনাদের সবাইকে ধন্যবাদ।’

‘আজ আমি আনুষ্ঠানিকভাবে বাংলাদেশের ওয়ানডে দলের অধিনায়কত্ব থেকে সরে যাচ্ছি। আগামীকাল জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে শেষ ওয়ানডে অধিনায়ক হিসেবে শেষ ম্যাচ। খেলোয়াড় হিসেবে অবশ্যই আমি চেষ্টা করবো আমার সেরাটা দেওয়ার যদি সুযোগ আসে আমার এবং আমার শুভকামনা থাকবে আমার পরবর্তী অধিনায়কের জন্য। আমার বিশ্বাস বাংলাদেশ দলকে আরও একধাপ এগিয়ে নিয়ে যাবে ইনশাআল্লাহ। যদি আমি দলে থাকি আমিও চেষ্টা করবো আমার যে অভিজ্ঞতা হয়েছে… আমার ভেতরে যতটুকু আছে ততটুকু দিয়ে সহযোগিতা করার। ধন্যবাদ আপনাদের সবাইকে।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here