করাচিতে বোমা বিস্ফোরণ ঘটান ‘উচ্চ শিক্ষিত ও সম্ভ্রান্ত’ এক নারী

0
26

খবর৭১ঃ পাকিস্তানের করাচি বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে মঙ্গলবার আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণে চীনের তিন নাগরিক ও এক পাকিস্তানি নিহত হন।

সেই হামলার দায় স্বীকার করে বেলুচিস্তান লিবারেশন আর্মি নামে একটি জঙ্গি সংঘটন।

আত্মঘাতী সেই বোমা হামলার ঘটনাটি ধরা পড়েছে সিসি ক্যামেরায়।

সিসি ক্যামেরায় দেখা যায় বোরকা পরিহিতা এক নারী খুব স্বাভাবিকভাবে দাঁড়িয়ে আছেন। যেই না চীনের নাগরিকদের বহনকারী গাড়িটি তার সামনে এসেছে তিনি তখনই নিজেকে উড়িয়ে দেন।

এবার সেই নারীর পরিচয় খুঁজে বের করেছে পাকিস্তানের গণমাধ্যম জিও নিউজ। তারা জানিয়েছে বোমা হামলা ঘটান উচ্চ শিক্ষিত ও সম্ভ্রান্ত পরিবারের এক নারী।

তিনি বেলুচিস্তান লিবারেশন আর্মির সক্রিয় সদস্য ছিলেন। তিনি ছিলেন সন্ত্রাসী সংগঠনটির মজিদ ব্রিগেডে।

জিও নিউজের একটি অনুষ্ঠানে এর উপস্থাপক ওয়াজেদ বেলুচ সেই নারীর পরিচয় জানান ও ঘটনাটি বিশ্লেষণ করেন।

তিনি জানান, যেই নারী এমন বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটিয়েছেন তার পরিবারের সবাই উচ্চশিক্ষিত। ওই নারী নিজে এমফিল করছিলেন। তিনি সরকারি স্কুলের শিক্ষিকাও ছিলেন।

আত্মঘাতী বোমা হামলা চালানো নারীর স্বামী ছিলেন একজন ডাক্তার।

ওই নারীর বাড়ি ও জন্মস্থান হলো বেলুচিস্তানের তুরবাতের কিচ নামক একটি স্থানে।

তিনি উচ্চশিক্ষার জন্য তার স্বামীর সঙ্গে করাচিতে এসেছিলেন।

সর্বশেষ তিনি তার জন্মস্থান কিচে যান নিজের বোনের বিয়েতে উপস্থিত হওয়ার জন্য।

আত্মঘাতী হামলা চালানো ওই নারীর বাবা ছিলেন তুরবাত বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্টার।

তাছাড়া তার পরিবারের বেশ কয়েকজন সদস্য সরকারি চাকরি করেন।

উপস্থাপক ওয়াজেদ বালুচ জানান, বেলুচিস্তান লিবারেশন আর্মি এবারই প্রথমবার আত্মঘাতী হামলায় কোনো নারীকে ব্যবহার করেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here