পরীক্ষায় অনিয়ম: স্বাস্থ্যের ২৮৩৯ জনের নিয়োগ বাতিল

0
37

খবর৭১ঃ করোনকালে স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে মেডিকেল টেকনোলজিস্ট, টেকনিশিয়ান ও কার্ডিওগ্রাফার পদে প্রায় তিন হাজার কর্মীর নিয়োগ প্রক্রিয়া শেষ করা হয় গত মার্চে। লিখিত পরীক্ষার পর মৌখিক পরীক্ষাও শেষ করা হয় দ্রুততার সঙ্গে। কিন্তু তখনই বিশাল এই নিয়োগে ওঠে দুর্নীতির অভিযোগ। তদন্ত শেষে দুর্নীতি ও অনিয়ম প্রমাণিত হওয়ায় এই তিন পদের দুই হাজার ৮৩৯ জনের নিয়োগ বাতিল করল স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

সোমবার স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের উপসচিব আনজুমান আরা স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে এই কথা জানানো হয়।

গত বছরের ২৯ জুন স্বাস্থ্য অধিদপ্তর মেডিকেল টেকনোলজিস্টদের ৮৮৯টি পদ, মেডিকেল টেকনিশিয়ানদের এক হাজার ৮০০টি পদ এবং কার্ডিওগ্রাফার পদে ১৫০ জনের নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দেয়।

নিয়োগ বাতিল করে দেওয়া চিঠিতে বলা হয়, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরেরর আওতাধীন মেডিকেল টেকনোলজিস্ট, মেডিকেল টেকনিশিয়ান ও কার্ডিওগ্রাফার পদে নিয়োগে দুর্নীতির বিষয়ে পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদের পরিপ্রেক্ষিতে তদন্ত করার জন্য স্বাস্থ্যসেবা বিভাগ কর্তৃক কমিটি গঠন করা হয়। কমিটি থেকে দাখিল করা তদন্ত প্রতিবেদনের আলোকে স্বাস্থ্যমন্ত্রী অধিদপ্তরের আওতাধীন ওই তিন পদে জনবল নিয়োগের বিষয়ে নির্দেশনা দিয়েছেন।

নির্দেশনায় বলা হয়, যেহেতু তদন্ত প্রতিবেদনে লিখিত পরীক্ষার খাতায় অস্পষ্টতা পাওয়া গেছে বলে উল্লেখ রয়েছে, সেহেতু নিয়োগ কার্যক্রম বাতিলপূর্বক অল্পসময়ে বিজ্ঞপ্তি প্রদান করে দ্রুত পুনরায় নতুন নিয়োগের ব্যবস্থা করা হোক।

জানা গেছে, অধিদপ্তরের বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী, মেডিকেল টেকনোলজিস্ট পদে ২৩ হাজার ৫২২ ও মেডিকেল টেকনিশিয়ানদের বিভিন্ন গ্রুপে প্রায় ৫০ হাজার জনকে লিখিত পরীক্ষার জন্য নির্বাচন করা হয়। গত ১২, ১৮ এবং ১৯ ডিসেম্বর লিখিত পরীক্ষা হয়।

এ বছর ২২ ফেব্রুয়ারি ও ১০ মার্চ লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের মৌখিক পরীক্ষাও নেয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। এরপর পরীক্ষায় অনিয়ম এবং দুর্নীতির অভিযোগ ওঠে। পরে অভিযোগ তদন্তে কমিটি গঠন করা হয় তদন্ত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here