পাইপলাইনে গ্যাস সৈয়দপুরে খুশিতে আওয়ামীলীগের মিষ্টি বিতরণ

0
81

মিজানুর রহমান মিলন সৈয়দপুর :
গতকাল মঙ্গলবার জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় রংপুর,সৈয়দপুর, নীলফামারী শহর ও পার্শ্ববর্তী এলাকায় পাইপলাইনের মাধ্যমে গ্যাস সরবরাহের সিদ্ধান্ত এবং অচিরেই কাজ শুরু হবে এ সংবাদে আনন্দের বন্যা বইছে গোটা উপজেলায়। এখুশিতে সৈয়দপুর উপজেলা ও পৌর আওয়ামীলীগের পক্ষ থেকে সাধারণ জনতার মাঝে মিষ্টি বিতরণ করা হয়েছে। আজ বুধবার সকালে উপজেলা আওয়ামীলীগের কার্যালয়ের সামনে জনতার মুখে মিষ্টি তুলে দেন দলটির নেতাকর্মীরা।

এসময় নেতাকর্মীসহ সর্বস্তরের মানুষজন প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদসহ তাঁর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।
এবিষয়ে জানতে চাইলে সৈয়দপুর উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মোখছেদুল মোমিন বলেন, বগুড়া থেকে পাইপলাইনে গ্যাস যাবে উত্তরা ইপিজেড পর্যন্ত। এটি একনেকের সভায় চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়েছে।ফলে এ গ্যাসের কারণে রংপুর হয়ে সৈয়দপুর ও গোটা নীলফামারী জেলায় অসংখ্য শিল্প প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠবে এ অঞ্চলে। ফলে এসব শিল্প প্রতিষ্ঠানে কয়েক লাখ লোকের কর্মসংস্থান হবে। উন্নত হবে নীলফামারী জেলা। তিনি বলেন প্রকল্পটি অনুমোদন হওয়ার খবরে সৈয়দপুরসহ গোটা জেলাবাসী আজ মহাখুশি। আর এ খুশিতেই আমরা দলীয়ভাবে মিষ্টি বিতরণ করেছি। এজন্য তিনি , এ অঞ্চলের জনগনের পক্ষ থেকে মানবতার মা প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনাকে অভিনন্দন জানিয়ে তাঁর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। মিষ্টি বিতরণকালে এ সময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক মো. মহসিনুল হক মহসিন,পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) মো.রফিকুল ইসলাম বাবু, সাধারণ সম্পাদক মো. মোজাম্মেল হকসহ আওয়ামী লীগ এবং অন্যান্য অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। প্রসঙ্গত: মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রী ও একনেক চেয়ারপারসন শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে একনেকের ওই সভায় গ্যাস বিতরণ পাইপলাইন নেটওয়ার্ক নির্মাণ প্রকল্পটি অনুমোদন দেওয়া হয়। এতে ব্যয় হবে ২৫৮ কোটি ১১ লাখ টাকা। আগামি মাসে প্রকল্পের কাজ শুরু হয়ে তা শেষ হবে ২০২৩ সালের ডিসেম্বর মাসে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here