সুন্দরগঞ্জে তরুণীকে অপহরণ: দেড়মাস আটকে রেখে ধর্ষণ

0
57

আবু বক্কর সিদ্দিক, গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি: গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার সর্বানন্দ ইউনিয়নের তালুক বাজিত গ্রামের (ধনিয়ারকুড়াস্থ) মহাবীর বাস্ফোরের ষোড়শী মেয়েকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে অপহরণ অতঃপর দেড়মাস যাবৎ আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগে ৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন অপহৃতার মা মালতি রাণী বাস্ফোর।
বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়, গত শুক্রবার অসুস্থ ঐ সুইপার ষোড়শীকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করেছেন স্বজনরা। এর দেড়মাস আগে প্রেমের ফাঁদে ফেলে একই গ্রামের লেংরা জামালের ছেলে আব্দুল মোত্তালেব সুইপার সম্প্রদায়ের ঐ ষোড়শীকে অপহরণ করে অজনার উদ্দেশ্যে পারি দেয়। এরপর গত বুধবার অসুস্থ ঐ ষোড়শীকে তার পিত্রালয়ে পাঠিয়ে কোথাও কোন মামলা বা অভিযোগ না করার জন্য মহাবীর বাস্ফোরসহ পরিবারের সবাইকে কঠোর হুমকী প্রদান করা হয়। সুইপারের ষোড়শীকে অপহরণ পূর্বক তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে দেড়মাসকাল আটকে রেখে ধষর্ণের অভিযোগ এনে ৪ জনকে আসামী করে থানায় সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা করেন ষোড়শীর মা মালতী রাণী বাস্ফোর। আসামীদের অবিলম্বে গ্রেপ্তার ও পরিবারের নিরাপত্তার দাবীতে জেলা শহরের রেলগেইটে মানববন্ধন করেছেন হরিজান সম্প্রদায়।
মামলাটির তদন্তকারী কর্মকর্তা বামনডাঙ্গা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ শফিকুজ্জামান ইসলাম সরকার জানান, আসামীদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।
থানার নিরস্ত্র পুলিশ পরিদর্শক (ওসি, তদন্ত) বুলবুল ইসলাম জানান, বৃহস্পতিবার (১৮ই জুন) অপহরণ ও ধর্ষণের শিকার ঐ ষোড়শীর মা মালতি রাণী বাস্ফোর বাদী হয়ে ৪ জনকে আসামী করে থানায় একটি মামলা করেছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here