সপ্তাহের পরিস্থিতি দেখে পরবর্তী লকডাউনের বিষয়ে সিদ্ধান্ত’

0
19

খবর৭১ঃ স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম বলেছেন, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পক্ষ থেকে ১২ দিনে সম্পূর্ণ লকডাউনের প্রস্তাব দেয়া হয়েছিল। কিন্তু সরকার বলেছে প্রথম এক সপ্তাহ হবে। পরিস্থিতি দেখে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

শনিবার কেবিনেট সচিব আনোয়ার হোসেন ও মুখ্য সচিব আহমেদ কায়কাউসের সঙ্গে দীর্ঘ সময় বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের বৈঠক শেষে তিনি এ কথা বলেন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বলেন, লকডাউনকালে অত্যাবশকীয় সেবা চালু ছাড়া সবকিছু বন্ধ থাকবে। সন্ধ্যা ৬টা থেকে সকাল ৬টা পর্যন্ত ঘরের বাইরে যাওয়া বন্ধ থাকবে। এছাড়া গণপরিবহন, দূরপাল্লার বাস, লঞ্চ, বিমান ও ট্রেন চলবে কিনা সে বিষয়ে আজ (শনিবার) রাতেই নির্দেশনা তৈরি হবে, যা রবিবার প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে জানানো হতে পারে।

লকডাউন চললে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ও হাসপাতালে স্বাস্থ্যকর্মী, চিকিৎসক ও নার্সের ছুটি আপাতত স্থগিদ থাকবে। আমাদের ডাক্তাররা গত এক বছর ধরে নিরলস চিকিৎসা দিয়ে যাচ্ছেন। তারা সকলেই সেবা দিতে দিতে ক্লান্ত। এ অবস্থায় চাপ যদি আরও বাড়তে থাকে তাহলে আমরা হয়তো পেরে উঠবো না।

টিকার বিষয়ে তিনি বলেন, ৫ এপ্রিল থেকে প্রথম ডোজ দেয়া বন্ধ করা হবে কিনা তা নিয়ে রাতেই আজ (শনিবার) আরেকটা বৈঠক হবে। সেখানেই সিদ্ধান্ত আসতে পারে। বেক্সিমকোর সঙ্গে কথা বলেছি, তারা বলেছে শিগগিরই টিকা আসবে। আমরা অপেক্ষায় আছি।

তিনি বলেন, লকডাউনের সিদ্ধান্ত সরকার ভেবে চিন্তেই নিয়েছে। হুট করে কোনো সিদ্ধান্ত নেয়া যায় না

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here