সৈয়দপুরে কোভিড-১৯ টিকাদান কার্যক্রমের উদ্বোধন টিকা নিলেন চিকিৎসকসহ ১০ জন

0
57
সৈয়দপুরে কোভিড-১৯ টিকাদান কার্যক্রমের উদ্বোধন টিকা নিলেন চিকিৎসকসহ ১০ জন

মিজানুর রহমান মিলন সৈয়দপুর :
আজ রবিবার সারাদেশের মতো নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলায় কোভিড-১৯ টিকাদান কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হয়েছে। সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালে স্থাপিত কেন্দ্রে সকাল ১০টায় টিকাদান কর্মসুচির উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য রাবেয়া আলীম।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সৈয়দপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. নাসিম আহমেদ। স্বাগত বক্তব্য বলেন, সৈয়দপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আবু মো. আলেমুল বাশার। এতে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য বলেন সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালের তত্বাবধায়ক ডা. মো. শহিদুল্লাহ, বিশিষ্ট চক্ষু বিশেষজ্ঞ ও সার্জন প্রফেসর ডা. আলহাজ্ব মো. শরীফুল আলম চৌধুরী, সৈয়দপুর পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. রফিকুল ইসলাম বাবু, আওয়ামী লীগ নেতা প্রকৌশলী একেএম রাশেদুজ্জামান রাশেদ, সৈয়দপুর প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক তোফাজ্জল হোসেন লুতু, সাংবাদিক এম আর আলম ঝন্টু, থানার অফিসার ইনচার্জ আবুল হাসানাত খান, খাতামধুপুর ইউপি চেয়ারম্যান জুয়েল চৌধুরী প্রমুখ। অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি সাংসদ রাবেয়া আলীম বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী সিদ্ধান্তের কারণে আমরা প্রথমভাগেই টিকা পেয়েছি। টিকা কার্যক্রম শুরুর মাধ্যমে দেশ দ্রুত করোনা মুক্তিতে সক্ষম হবে। পরে উদ্বোধনী দিনে সম্মূখ সারির যোদ্ধা হিসেবে প্রথম টিকা গ্রহণ করেন সৈয়দপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের নার্সিং সুপারভাইজার রাহেনা বেগম। এরপর সৈয়দপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আবু মো. আলেমুল বাশার, সৈয়দপুর ১০০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালের তত্বাবধায়ক ডা. মো. শহিদুল্লাহসহ একে একে সম্মূখসারির ১০ জন যোদ্ধাকে টিকা দেওয়া হয়।

প্রথম টিকা গ্রহণকারী নাসিং সুপারভাইজার মোছা. রাহেনা বেগম তাৎক্ষণিক অনুভুতি ব্যক্ত করে বলেন, প্রথম টিকা নিতে পেরে আমি নিজেকে অনেক বেশি গর্বিত মনে করছি। আমি টিকা নিতে কোন ভয় পাইনি। টিকা গ্রহনে মানুষ যাতে কোন রকম ভয়ভীতি না পায় তাদেরকে উদ্বুদ্ধ করতে একজন স্বাস্থ্যকর্মী হিসাবে আমি প্রথম টিকা নিয়েছি। সৈয়দপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আবু মো. আলেমুল বাশার জানান, সৈয়দপুর উপজেলার জন্য প্রথম ধাপের ৮ হাজার ৬৫০ ডোজ টিকা বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। এ সব দিয়ে ৪ হাজার ৩২৫ জন ব্যক্তি টিকা পাবেন। সৈয়দপুরে দুইটি টিকাদান কেন্দ্র স্থাপন করা হয়েছে। এর একটি হচ্ছে সৈয়দপুর সেনানিবাসের সম্মিলিত সামরিক হাসপাতাল ও সৈয়দপুর ১০০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতাল। সৈয়দপুর ১০০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে স্থাপিত টিকাদান কেন্দ্রে ২টি বুথ স্থাপন করা হয়েছে। একটি বুথে ২ জন নার্স ও ৪ জন স্বেচ্ছাসেবক রয়েছেন। এ কেন্দ্রে সকাল ১০টা থেকে বিকেলে ৩টা পর্যন্ত পর্যায়ক্রমে সম্মূখসারির যোদ্ধাসহ নিবন্ধনকারীদের মাঝে টিকা দেওয়ার কার্যক্রম চলবে। সম্মূখ সারির যোদ্ধাসহ ৫৫ বছর বয়সের উর্ধ্বের ব্যক্তিদের জন্য নিবন্ধন উন্মুক্ত করা হয়েছে। এসব ব্যক্তিরা টিকা গ্রহণে অগ্রাধিকার পাবেন। প্রতিদিন টিকা কেন্দ্রে এসেও নাম নিবন্ধন করা যাবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here