চট্টগ্রামে নির্বাচনী সংঘাতে একজনের মৃত্যু

0
42

খবর৭১ঃ চট্টগ্রাম নগরীর ডবলমুরিং থানার পাঠানটুলিতে আওয়ামী লীগ সমর্থিত ও বিদ্রোহী কাউন্সিলর প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এসময় গুলিবিদ্ধ হয়ে একজন নিহত হয়েছেন। তার নাম আজগর আলী বাবুল (৫৫)। এ ঘটনায় গুলিবিদ্ধ আরেকজন চিকিৎসা নিচ্ছেন।

মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে পাঠানটুলি ওয়ার্ডের মোগলটুলি মগপুকুরপাড় এলাকায় এ সংঘের্ষের ঘটনা ঘটে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ডবলমুরিং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সদীপ কুমার দাশ বলেন, আওয়ামী লীগ সমর্থিত কাউন্সিলর প্রার্থী নজরুল ইসলাম বাহাদুরের সমর্থকদের সঙ্গে বিদ্রোহী প্রার্থী আব্দুল কাদেরের সমর্থকদের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে আজগর আলীর মৃত্যু হয়। তিনি পাঠানটুলি এলাকার বাসিন্দা। সংঘর্ষে অপর গুলিবিদ্ধ মাহবুব চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

২৮ নম্বর ওয়ার্ডের গতবারের কাউন্সিলর আব্দুল কাদের ওরফে মাছ কাদের নগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছিরের অনুসারী হিসেবে পরিচিত। এবার দল তাকে মনোনয়ন না দিয়ে বাহাদুরকে মনোনয়ন দেয়।

বাহাদুর শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেলের অনুসারী। কাদেরের আগে ২০০০ সাল থেকে ২০১৪ সাল নাগাদ এই ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ছিলেন তিনি।

হতাহত বাবুল ও মাহবুবকে নিজের কর্মী দাবি করেছেন এবার আওয়ামী লীগের সমর্থন পাওয়া নজরুল ইসলাম বাহাদুর।

তিনি বলেন, আজকে ওই এলাকায় আমার জনসংযোগ ছিল। আমি জনসংযোগ করে রেজাউল ভাইর (আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী রেজাউল করিম চৌধুরী) নির্বাচনী কার্যালয়ে গিয়েছিলাম, সেখান থেকে নজিরভাণ্ডার লেইনে যাওয়ার কথা ছিল। সময় কাদেরের নেতৃত্বে তার অনুসারীরা এসে হামলা চালায়।’

‘তাকে বাঁচাতে গিয়ে’ বাবুল ও মাহবু্ব গুলিবিদ্ধ হয়েছেন বলে দাবি করেন এই কাউন্সিলর প্রার্থী। অভিযোগের বিষয়ে বিদ্রোহী প্রার্থী আব্দুল কাদেরের বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

নগর পুলিশের উপকমিশনার (পশ্চিম) ফারুক-উল-হক বলেন, দুই কাউন্সিলর প্রার্থীর মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। গোলাগুলি হয়েছে। পরিস্থিতি এখন শান্ত রয়েছে। এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here