বেহালদশা ঝিনাইদহের হরিণাকুন্ডু গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের ২ কিলোমিটার রাস্তার

0
86
বেহালদশা ঝিনাইদহের হরিণাকুন্ডু গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের ২ কিলোমিটার রাস্তার

খবর৭১ঃ

রাব্বুল ইসলাম, ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহের হরিণাকুন্ডু গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের ২ কিলোমিটার রাস্তার বেহালদশা। সংস্কারের অভাবে ভোগান্তিতে পড়েছে হাজার হাজার মানুষ। দেখার যেন কেউ নেই। জনপ্রতিনিধিদের আশার বানী শুনতে শুনতে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছেন ভুক্তভোগী এলাকাবাসী।

দীর্ঘদিন ধরে সংস্কার না হওয়ায় চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে স্কুল-কলেজের ছাত্র-ছাত্রীসহ হাজার হাজার মানুষকে। উপজেলাধীন রঘুনাথপুর ইউনিয়নের গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের এক মাত্র জনগুরুত্বপূর্ণ রাস্তাটি প্রায় দুই যুগ ধরে কোন উন্নয়নের ছোঁয়া লাগেনি। অত্র এলাকাবাসীর প্রায় ২ কিলোমিটার রাস্তাটির অবস্থা অত্যন্ত বেহালদশা। উপজেলার বিভিন্ন স্থানে যোগাযোগ খাতে উন্নয়নের বিপ্লব ঘটলেও স্থানীয় কর্তৃপক্ষ নীরব থাকায় গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের রাস্তাটি দীর্ঘদিন ধরে সংস্কার না হওয়ায় চলাচলের জন্য একেবারে অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। সরেজমিন ঘুরে দেখা যায়, উপজেলার রঘুনাথপুর ইউনিয়নের গাড়াবাড়ীয়া গ্রামে প্রায় তিন হাজার মানুষের বসবাস। গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের একমাত্র রাস্তাটি বছরের পর বছর সংস্কারের অভাবে অচল অবস্থায় পড়ে আছে।

দুই ধারে পুকুর থাকায় বর্তমান রাস্তাটি অনেক সরু হয়ে গেছে। আর এ কারনে রাস্তা ভেঙে পুকুরের ভিতর চলে গেছে। যেখানে যানবাহন চলাচল তো দুরের কথা, পায়ে হেঁটে চলাচল করতে তাদের খুব কষ্ট হয়। এরপরও রাস্তা দিয়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে প্রতিদিন বিভিন্ন ধরনের যানবাহন চলাচল করার ফলে প্রায় সময়ই ঘটছে ছোট-বড় দুর্ঘটনা। এলাকাবাসীর একটাই দাবি রাস্তা সংস্কার চাই তারা। গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের একাধিক বাসিন্দা অভিযোগ করে বলেন, তাদের গ্রামের এক মাত্র ও জনগুরুত্বপূর্ণ রাস্তাটি প্রায় দুই যুগ ধরে উন্নয়নের কোন ছোঁয়া লাগেনি। সড়কটি সংস্কারের জন্য দীর্ঘদিন ধরে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের কাছে দাবি জানিয়ে এলেও কেউ তাদের দাবির প্রতি ভ্রুক্ষেপ করছে না। আর সড়কে চলাচল করতে গিয়ে দুর্ঘটনায় অনেক পথচারীর হাত-পা ভেঙে পঙ্গু হচ্ছে। গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের শিক্ষক মঈন উদ্দিন জানান, প্রায় দুই যুগ ধরে অবহেলায় রাস্তাটি চলাচলের অনুপযোগি হয়ে থাকলেও জনপ্রতিনিধি বা এলজিডি কর্তৃপক্ষের কোনো মাথা ব্যাথা নেই। আমরা দ্রুত রাস্তা সংস্কার চাই।

গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের যানবাহন চালকেরা বলেন, আমাদের এই রাস্তাটিতে বিভিন্ন স্থানে অসংখ্য ছোট-বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। এই রাস্তা দিয়ে কৃষিপণ্য নিয়ে চলাচলের সময় নসিমন, করিমন, গরুরগাড়ী, অটো ভ্যানসহ যানবাহন গুলো উল্টে যায়, আবার কখনো কখনো ভেঙ্গে পড়ে যাত্রীরা আহত হয়। উক্ত জনগুরুত্বপূর্ণ রাস্তাটি দ্রুত মেরামত করা না হলে যে কোন সময় ঘটতে পারে বড় ধরণের দুর্ঘটনা। রঘুনাথপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রাকিবুল হাসান রাসেল বলেন, হাজার হাজার হেক্টর জমির ফসল গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের রাস্তা দিয়ে কৃষকের ঘরে উঠে।

রাস্তাটি সংস্কার না হওয়ায় সাধারণ মানুষ অনেক ভোগান্তিতে পড়ছে। অনতিবিলম্বে তিনি রাস্তা সংস্কারে দাবী জানান। এদিকে হরিণাকুন্ডু উপজেলা প্রকৌশলী আরিফুর রহমান জানান, গাড়াবাড়ীয়া গ্রামের রাস্তাটি ইতিমধ্যে টেন্ডার হয়েছে। খুব দ্রুব সংস্কার করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here