মুজিব মিনার’ নির্মাণের প্রস্তাব শীর্ষ আলেমদের

0
68
মুজিব মিনার’ নির্মাণের প্রস্তাব শীর্ষ আলেমদের

খবর৭১ঃ ভাস্কর্যের পরিবর্তে মহান আল্লাহর ৯৯ নামখচিত ‘মুজিব মিনার’ নির্মাণসহ ৫ দফা প্রস্তাব দিয়েছে হেফাজতে ইসলামসহ দেশের শীর্ষস্থানীয় আলেম-ওলামাগণ। তারা বলেছেন, কোরআন-সুন্নাহ সমর্থিত উত্তম কোনো বিকল্প সন্ধান করাই উত্তম। বিকল্প হিসেবে আমাদের প্রস্তাব আল্লাহর ৯৯ নামখচিত মুজিব মিনার নির্মাণ করা হোক।

গতকাল শনিবার ঢাকার জামিয়া মাদানিয়া যাত্রাবাড়ী মাদ্রাসায় অনুষ্ঠিত এক বৈঠকে সরকারকে এ প্রস্তাব দেওয়া হয়। বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন কওমি মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড-বেফাকের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ও গুলশান আজাদ মসজিদের খতিব আল্লামা মাহমুদুল হাসান। বৈঠকে শুধু আমন্ত্রিত আলেম-ওলামা ও সংশ্লিষ্ট প্রতিনিধিরা অংশ নেন।

বৈঠকে গৃহীত সিদ্ধান্তে বলা হয়, মানব মূর্তি ও ভাস্কর্য যে কোনো উদ্দেশে তৈরি করা ইসলামে কঠোরভাবে নিষিদ্ধ। কোনো মহত্ ব্যক্তি বা নেতার ভাস্কর্য স্থাপন করে শ্রদ্ধা জানানো শরিয়তসম্মত নয়। বরং কোরআন-সুন্নাহ সমর্থিত কোনো উত্তম বিকল্প সন্ধান করাই যুক্তিযুক্ত বলে মনে করেন দেশের আলেম সমাজ।

বেফাক সভাপতির পক্ষ থেকে আলেমদের এই মতামত সংবলিত একটি চিঠি প্রধানমন্ত্রী বরাবর পাঠানো হবে, সেই সঙ্গে একটি প্রতিনিধি দল আলেমদের প্রস্তাবনার বিষয়বস্তু বাস্তবায়নের জন্য প্রধানমন্ত্রীসহ সরকারের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে সাক্ষাত্ করবেন বলে বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়। রুদ্ধদ্বার এ বৈঠকে সারা দেশ থেকে দেড় শতাধিক আলেম অংশ নেন।

আলেমদের বৈঠক থেকে পাঁচটি প্রস্তাব পাঠ করেন শিবচর জামিয়াতুস সুন্নাহ মাদ্রাসার মুহতামিম মুফতি নেয়ামতুল্লাহ আল ফরিদী। অন্য প্রস্তাবগুলো হলো—তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহারে বিশ্বনবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের প্রতি অবমাননাকর আচরণের ওপর কঠোর নজরদারি এবং দোষীদের বিরুদ্ধে সর্বোচ্চ আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ, ঈমানি আন্দোলনে গ্রেফতারকৃতদের নিঃশর্ত মুক্তি ও মামলা প্রত্যাহার, সব দিনি মাহফিল যথানিয়মে অনুষ্ঠানের অবাধ সুযোগ প্রদান এবং আলেমদের বিরুদ্ধে বিষোদগার ও দায়িত্বহীন আচরণ বন্ধে শান্তিপূর্ণ সমাধান খুঁজে বের করা।

বৈঠকে শীর্ষ আলেমদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন—আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরীর প্রতিনিধি মুফতি জসীমুদ্দীন, আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমীর প্রতিনিধি মাওলানা নাজমুল হাসান, মুফতি মুহাম্মদ ওয়াক্কাস, আল্লামা আব্দুল হালীম বোখারীর প্রতিনিধি মাওলানা আবু তাহের নদভী, আল্লামা আব্দুল হামিদ (পির সাহেব মধুপুর), আল্লামা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী, মুফতি সৈয়দ ফয়জুল করীম, মাওলানা উবায়দুর রহমান খান নদভী, আল্লামা আব্দুর রহমান হাফেজ্জী প্রমুখ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here